ICICI Bank Personal Loan কিভাবে পাবো: ICICI Bank Take Loan Kivabe Neoa Jay – ICICI Bank Personal Loan Apply Online

ICICI Bank Personal Loan কিভাবে পাওয়া যায়, ICICI Bank Theke Loan Kivabe Neoa Jay – ICICI Bank Personal Loan Apply Online

আইসিআইসিআই ব্যাংক থেকে পার্সোনাল লোন নিন ২৫ লাখ পর্যন্ত, ICICI Bank Personal Loa Details In Bengali

বন্ধুরা, যদি আপনি টাকা নিয়ে চিন্তিত হন এবং আপনি ভাবছেন যে এই সময়ে যদি আমার কাছে টাকা থাকত, তাহলে আমি এই সময়ে মোটেও চিন্তা করতে হতোনা, এখন এই টাকা কোথা থেকে আসবে, তাহলে আপনাকে এটি নিয়ে চিন্তা করতে হবে না কারণ এই পোস্টটি পুরোপুরি পড়ার পরে, আপনি আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে থেকে ১০০% টাকা পাবেন, এখন আপনি ভাবছেন কি করে, তাই আমি আপনাকে বলতে চাই যে আজকের দিনে টাকা ধার করা যতটা সহজ তেমনটি সহজ কাছাকাছি দোকান থেকে জিনিসপত্র আনা, এখন আপনি বলবেন যে কেউ আমাদের টাকা ধার দেয় না, সবাই অস্বীকার করে, আমি মোটেও বলছি না যে আপনি আপনার আশেপাশের লোকদের আপনার বন্ধুদের কাছ থেকে টাকা ধার নিতে। এখন আমি বলবো এই টাকা কিভাবে ধার করা যায়, তাই আমি বলছি আপনি অনলাইনে টাকা ধার নিতে পারেন, অর্থাৎ, আপনি অনলাইনে ঘরে বসে লোন নিতে পারেন,
 
Also read – 
 
 
এখন এই অনলাইন লোন কিভাবে নেয়া যায়, এটা কে কে পাবে এবং আজ আমি যে ব্যাংকের নাম বলতে যাচ্ছি তা হল ICICI ব্যাংক, আজ আমরা জানব যে ICICI Bank Personal Loan কাকে দেয়, ICICI ব্যাংকের ব্যক্তিগত লোন গ্রহণের জন্য কোন নথির প্রয়োজন হবে, কত টাকা ICICI ব্যাংক ব্যক্তিগত লোন দেয়, কত দিনের জন্য আপনি ICICI ব্যাংকের Personal Loan পাবেন, ICICI Bank Personal Loan কত সুদ থাকবে। ICICI ব্যাঙ্ক পার্সোনাল লোনে সুদ কত পেমেন্ট করতে হবে, আজ আমরা এই পোস্টে এই সব জানতে পারব, যদি আপনিও সবকিছু জানতে চান, তাহলে আমার সাথে থাকুন তাহলে আসুন জেনে নিই।
 
 

ICICI Bank Personal Loan গ্রহণের সুবিধা

বন্ধুরা, প্রথমেই জেনে নেওয়া যাক ICICI Bank Personal Loan লোন নেওয়ার সুবিধা কি, অর্থাৎ আমরা কেন এই ব্যাঙ্ক থেকে পার্সোনাল লোন নেব?
 
১. বন্ধুরা, এর প্রথম সুবিধা হল আপনি যদি এখান থেকে লোন নেন, তাহলে আপনি ২০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত লোন পাবেন।
 
২. এখানে আপনি No Security/Guarantor Required এর লোন পাবেন।
 
৩. আপনি যদি এখান থেকে লোন এপলাই করেন এবং আপনার লোন অনুমোদিত হয় তাহলে আপনি আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে মাত্র ৩সেকেন্ডের মধ্যে লোন পেয়ে যাবেন।
 
৪. বন্ধুরা, এখানে আপনি ১২ মাস থেকে ৬০ মাস পর্যন্ত লোন পরিশোধ করার সময় পেতে পারেন।
 
 

Eligibility/যোগ্যতা

বন্ধুরা, এখন আসুন যোগ্যতা সম্পর্কে কথা বলি অর্থাৎ এই লোন কে কে পেতে পারে, তাই আমি আপনাকে বলি, Salaried Person/Self-Employed উভয়ই এই লোন নিতে পারে, প্রথমেই কথা বলা যাক-
 
 
Salaried Person
১. আপনার বয়স সর্বনিম্ন ২৩ বছর এবং সর্বাধিক ৫৮ বছর হতে হবে।
 
২. আপনার উপার্জন কমপক্ষে ৩০,০০০ হতে হবে।
 
৩. আপনার চাকরির বয়স কমপক্ষে ২ বছর হতে হবে।
 
৪. আপনি যেখানে থাকেন অবশ্যই আপনাকে গত ২ বছর ধরে সেখানে বসবাস করতে হবে।
 
৫. এই লোন নেওয়ার জন্য আপনার একটি ভাল নাগরিক স্কোর থাকা দরকার।
 
৬. ব্যাঙ্ক আপনাকে লোন দেওয়ার আগে, আপনি আগে কোন লোন নিয়েছেন কি না তাও ব্যাংক দেখে।
 
 
Self-Employed 
১. আপনার বয়স হতে হবে সর্বনিম্ন ২৫ বছর এবং সর্বোচ্চ ৬৫ বছর।
 
২. এখানে আপনার সর্বনিম্ন টার্নওভারও দেখা হয়, যারা পেশাদার, তাদের টার্নওভার ১৫ লক্ষ, তাহলে তারা এই লোন পাবে কিন্তু যারা নন-প্রফেশনাল তাদের জন্য ৪০ লক্ষ টাকা টার্নওভার থাকা প্রয়োজন।
 
৩. বন্ধুরা, ব্যাংক জানতে চায় আপনার মুনাফা, ও আপনি কতটা লাভ করছেন।
 
৪. আপনার ব্যবসার বয়স ৫ বছর হতে হবে। 
 
৫. আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট কমপক্ষে ১ বছরের পুরনো হতে হবে।
 
 

Documents 

Salaried Person
 
১. ২টি পাসপোর্ট সাইজের ছবি লাগবে।
 
২. Identity Proof যেখানে আপনাকে পাসপোর্ট, ড্রাইভিং লাইসেন্স, ভোটার কার্ড, প্যান কার্ড এবং আধার কার্ড যেকোনো একটি দিতে হবে।
 
৩. Residence Proof যেখানে আপনাকে পাসপোর্ট, ড্রাইভিং লাইসেন্স, ভোটার কার্ড, প্যান কার্ড এবং আধার কার্ড যেকোনো একটি দিতে হবে।
 
৪. সর্বশেষ ৩ মাসের ব্যাংক স্টেটমেন্ট দিতে হবে। 
 
৫. এর সাথে আপনাকে ৩ মাসের স্যালারি স্লিপ ও দিতে হবে।
 
 
Self-Employed
 
১. Identity Proof যেখানে আপনাকে পাসপোর্ট, ড্রাইভিং লাইসেন্স, ভোটার কার্ড, প্যান কার্ড এবং আধার কার্ড যেকোনো একটি দিতে হবে।
 
২. Residence Proof যেখানে আপনাকে পাসপোর্ট, ড্রাইভিং লাইসেন্স, ভোটার কার্ড, প্যান কার্ড এবং আধার কার্ড যেকোনো একটি দিতে হবে।
 
. আয়ের প্রমাণ দিতে হয়, ২ বছরের দেওয়া প্রয়োজন।
 
. ৬ মাসের ব্যাংক স্টেটমেন্ট দিতে হবে।
 
৫. আপনার অফিসের ঠিকানার প্রমাণ দিতে হবে।
 

ICICI Bank Personal Loan কত পাবেন?

বন্ধুরা, আপনি এখান থেকে ২০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত লোন নিতে পারেন এবং লোন শোধ করার জন্য আপনি ১২ মাস থেকে ৬০ মাস পর্যন্ত সময় পাবেন, এই লোণে আপনি ১১.২৫% থেকে ১৯% পর্যন্ত সুদ দিতে হবে।
 
 

How To ICICI Bank Personal Loan Apply Online

এখন আসুন কিভাবে এই লোণের জন্য অনলাইনে আবেদন করা যায় সে সম্পর্কে কথা বলি, বন্ধুরা, আপনাকে আবেদনের জন্য খুব বেশি কিছু করতে হবে না, আপনাকে শুধু ICICI ব্যাংকের ওয়েবসাইটে গিয়ে Personal Loan জন্য আবেদন করতে হবে এবং যদি আপনার লোন অনুমোদিত হয় তবেই আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে লোণের পরিমাণ ৩ সেকেন্ডের মধ্যে আপনার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে পেয়ে যাবেন। এবং তারপরে আপনি এই লোণের পরিমাণটি যে কোনও জায়গায় ব্যবহার করতে পারেন।
 
 
বন্ধুরা, আজ আপনারা জেনেছেন ICICI ব্যাংক Personal Loan কাকে দেয়, ICICI ব্যাংকের Personal Loan নেওয়ার জন্য কোন কোন ডকুমেন্ট প্রয়োজন হবে, ICICI ব্যাংক Personal Loan আপনাকে কত দেয়, ICICI ব্যাংকের Personal Loan আপনাকে কত দিনের জন্য দেয়। ICICI ব্যাংকের Personal Loan কত সুদ দিতে হবে, আজ আমরা এই পোস্টে এই সব শিখেছি, যদি আপনার কোন প্রশ্ন থাকে, তাহলে আপনি কমেন্ট করে আমাদের জিজ্ঞাসা করতে পারেন এবং যদি আপনি আমাদের দেওয়া তথ্য পছন্দ করেন, তাহলে এটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন, আপনার মূল্যবান সময় থেকে কিছু সময় আমাদের পড়ার জন্য আপনার হৃদয়ের থেকে আপনাকে ধন্যবাদ।
 
এছাড়াও পড়ুন –
Share This Post

Leave a Reply

Biography

WordPress Embed

https://your-site.com/privacy/

Copy and paste this URL into your WordPress site to embed

WordPress Embed

https://www.your-site.org/about-us/

Copy and paste this URL into your WordPress site to embed